fbpx

বুধবার ২৭শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ | ১১ই কার্তিক, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

শিরোনাম
শিরোনাম

৪৫ দেশের ৫০ হাজার ফোনে আড়িপাতা হয়, তালিকায় বাংলাদেশও

মঙ্গলবার, ২০ জুলাই ২০২১
125 ভিউ
৪৫ দেশের ৫০ হাজার ফোনে আড়িপাতা হয়, তালিকায় বাংলাদেশও

বিশ্বের ৪৫টি দেশের ৫০ হাজারের বেশি স্মার্টফোনে আড়িপাতার ঘটনা ফাঁস হয়েছে। এসব দেশের রাজনীতিবিদ, বিশেষ করে বিরোধীদলীয় নেতা, বুদ্ধিজীবী, সাংবাদিক ও মানবাধিকার কর্মীরা এর শিকার হয়েছেন। এই তালিকায় বাংলাদেশের নামও রয়েছে। ইসরায়েলের এনএসও গ্রুপের তৈরি বিশ্বের সবচেয়ে শক্তিশালী স্পাইয়িং সফটওয়্যার ‘পেগাসাস’ ব্যবহার করে ফোনে আড়িপাতা হয়েছে। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনালের সহযোগিতায় দ্য গার্ডিয়ান, ওয়াশিংটন পোস্টসহ ১৬টি সংবাদমাধ্যমের যৌথ অনুসন্ধানে এসব তথ্য উঠে এসেছে। রোববার বিষয়টি প্রথম গণমাধ্যমে প্রকাশ পায়।

‘স্পায়িং সফটওয়্যার’ পেগাসাসে একবার কোনো স্মার্টফোন যুক্ত হলে ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত গোপনীয়তার দেয়াল ভেঙে যায়। বেডরুম থেকে যাপিত জীবন নিয়ে ফোনে যে ধরনেরই যোগযোগ হোক না কেন, তা চলে যায় তৃতীয় পক্ষের হাতে। আর এসব তথ্য ব্যবহার করে নজরদারিকারী সরকার বা প্রতিষ্ঠান ব্যক্তির সব কিছু জেনে যায়। পেগাসাসের এই ক্ষমতা সম্পর্কে সমকালকে জানিয়েছেন তথ্যপ্রযুক্তি বিশারদ সুমন আহমেদ সাবির।

সোমবার দ্য গার্ডিয়ান, ওয়াশিংটন পোস্ট, নিউইয়র্ক টাইমস ও বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, বাংলাদেশসহ ৪৫টি দেশ পেগাসাস ব্যবহার করছে। এই তালিকায় উন্নয়নশীল ও তৃতীয় বিশ্বের দেশের পাশাপাশি যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, সুইজারল্যান্ড, ফ্রান্সের মতো উন্নত দেশের নামও আছে। কর্তৃত্ববাদী সরকারগুলো এর ব্যবহার করে ভিন্নমত দমনের চেষ্টা করছে। ঘটনা ফাঁস হওয়ার পর এখন পর্যন্ত এই স্পাইয়িং সফটওয়্যারটির সবচেয়ে বেশি অপব্যবহারের প্রমাণ মিলেছে ভারতে। কংগ্রেস নেতা রাহুল গান্ধী থেকে তৃণমূল কংগ্রেসের সর্বভারতীয় সাধারণ সম্পাদক অভিষেক বন্দ্যোপাধ্যায়ের ফোনে আড়িপাতার তথ্য পাওয়া গেছে। শুধু তাই নয়, দেশটির অন্তত ৪০ সাংবাদিকসহ তিন শতাধিক গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তির ফোনে নজরদারি চালানো হয়েছে।

তালিকায় বাংলাদেশের নাম থাকা প্রসঙ্গে ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার সমকালকে বলেন, ডাক ও টেলিযোগাযোগ বিভাগ এবং এর অধীন কোনো প্রতিষ্ঠান এই সফটওয়্যার ব্যবহার করে না। ফলে পেগাসাস ব্যবহারকারী দেশের তালিকায় বাংলাদেশ নাম থাকার বিষয়টি গ্রহণযোগ্য নয়।

ডাক ও টেলিযোগাযোগ মন্ত্রণালয়ের বাইরে অন্য কোনো মন্ত্রণালয় বা সংস্থা এটি ব্যবহার করছে কিনা- জানতে চাইলে মন্ত্রী বলেন, অন্য মন্ত্রণালয় কিংবা সংস্থার বিষয়ে বলতে পারব না। তবে জানামতে, বাংলাদেশে এই সফটওয়্যারের ব্যবহার নেই। তিনি আরও বলেন, বিদেশে বসে দেশের অনেকেই বাংলাদেশ সম্পর্কে অপপ্রচার করছে। পেগাসাস ব্যবহারকারীর তালিকায় বাংলাদেশের নামটিও সেই অপপ্রচারের অংশ হতে পারে।

Facebook Comments Box
advertisement

Posted ১:২১ পূর্বাহ্ণ | মঙ্গলবার, ২০ জুলাই ২০২১

dainikjanatarkantha |

এ বিভাগের সর্বাধিক পঠিত

advertisement
advertisement
advertisement

এ বিভাগের আরও খবর

পত্রিকার প্রতিষ্ঠা ঃ জাকারিয়া হোসেন জোসেফ 

সম্পাদক মণ্ডলীর সভাপতি ঃ কুলেন্দু শেখর দাস তালুকদার

উপদেষ্টা সম্পাদক ঃ ইয়াহিয়া চৌধুরী

সম্পাদক ঃ মাইদুল মিয়া মাইদুল

বার্তা সম্পাদক ঃ উমেদ আলী

সহ বার্তা সম্পাদক ঃ সাজু আহমদ

সহ বার্তাঃ সম্পাদক ঃ সুলেমান হোসেন রুবেল

সহ বার্তা সম্পাদক ঃ মোঃআমির হুসাইন 

প্রচার সম্পাদক ঃ ইদু খান

উপদেষ্টা পরিষদ ঃ মোঃশহিদুল্লাহ,আবাব মিয়া, হারুন মিয়া, মুজিবুর রহমান তোতা, মোছাব্বির হোসেন জুনেদ, জিহাদুল হক জিহাদ, সাব্বির খান, মাওঃ আকবর আলী, মমতাজুল কোরেশি, শেখ গোলাপ মিয়া, নিজাম উদ্দিন।

গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার এর তথ্য মন্ত্রণালয়ের বিধি মোতাবেক নিবন্ধনের জন্য আবেদিত।
দৈনিক জনতার কণ্ঠ সম্পাদক ও প্রকাশক কর্তৃক .. থেকে প্রকাশিত।
%d bloggers like this: